ভাগ্য ফেরাতে কুমিরকে বিয়ে

ডেস্ক রিপোর্ট : প্রতিনিয়ত আমাদের চারপাশে এমন কিছু ঘটনা ঘটে যা অস্বাভাবিকই বটে। তেমনি একটি ঘটনা ঘটেছে মেক্সিকোতে। দেশটির একজন মেয়র ঘটা করে বিয়ে করেছেন একটি কুমিরকে। স্থানীয় জেলেদের ভাগ্য ফেরাতে প্রাচীন প্রথার অংশ হিসেবে এ বিয়ে করেন তিনি।রাজকুমারী হিসেবে পরিচিত নারী কুমিরটিকে গত বৃহস্পতিবার খ্রিস্টধর্মে দীক্ষা দেয়া হয়। এরপর কুমিরটিকে প্রথা অনুসারে বিয়ের পোশাক পরানো হয়। এর মুখ বন্ধ করে দেয়া হয়। বিয়ের কনের মতো কুমিরকে ঘোমটা পরানো হয় এবং বাদক দলের সঙ্গে রাস্তায় শোভাযাত্রা করা হয়।শোভাযাত্রা শেষে টাউন হলে কুমিরটিকে বিয়ে করেন সান পেদ্রোর মেয়র হুয়ামেলুলা ভিক্টর অ্যাগুইলার‌্যান্ড।১৭৮৯ সাল থেকে চোন্তাল ইন্ডিয়ানরা এ প্রথা অনুসরণ করে আসছে। তারা বিশ্বাস করেন এ অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ওয়াক্সাকা প্রদেশের তেহুয়ানতেপেকের ইস্থমাসের সমুদ্র তীরবর্তী স্থানীয় জেলেদের ভাগ্য ফিরে আসবে ও উন্নতি হবে।প্রথা অনুসারে, কুমিরকে রাজকুমারী হিসেবে মানা হয় এবং বিশ্বাস করা হয় এটি সম্প্রদায়ের মধ্যে শান্তি ও সমৃদ্ধি বয়ে আনবে।বিয়েতে আমন্ত্রিত এক অতিথি জানান, জমি, ফসল ও মাছের জন্য সৃষ্টিকর্তার প্রতি কৃতজ্ঞতাস্বরূপ তারা বিয়েতে নেচেছেন।অ্যাগুইলার‌্যান্ড বলেন, ‘মেরেনোসরা (স্থানীয় বাসিন্দারা) তাকে (কুমিরকে) রাজকুমারী সম্বোধন করে। আর আমি রাজকুমারীর স্বামীর ভূমিকা পালন করেছি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!