খালেদাসহ চারজনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন পেছাল

২০ দলীয় জোটের ডাকা হরতাল-অবরোধে ৪২ জনকে পুড়িয়ে মারার অভিযোগে করা মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ চারজনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন দাখিলের তারিখ পিছিয়ে ২৫ অক্টোবর নতুন তারিখ ধার্য করেছেন আদালত।বুধবার প্রতিবেদন দাখিল না হওয়ায় ঢাকা মহানগর হাকিম খুরশিদ আলম এই তারিখ ধার্য করেন। এর আগে মামলাটিতে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য ১৬টি তারিখ ধার্য হলেও পুলিশ প্রতিবেদন দাখিল করেনি।খালেদা ছাড়া মামলার অপর তিন আসামি হলেন চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ড. এমাজউদ্দিন আহম্মেদ, ভাইস চেয়ারম্যান শমসের মবিন চৌধুরী ও স্থায়ী কমিটির সদস্য রফিকুল ইসলাম মিয়া।২০১৫ সালের ২ ফেব্রুয়ারি জননেত্রী পরিষদের সভাপতি এ বি সিদ্দিকী মামলাটি করলে আদালত গুলশান থানার ওসিকে অভিযোগ তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন।বিভিন্ন পত্রিকার সংবাদের উদ্ধৃতি দিয়ে মামলার অভিযোগে বলা হয়, ২০১৫ সালের ৫ জানুয়ারি থেকে ২ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের অবরোধ ও হরতালে ৪২ জনকে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা হয়। এদের মধ্যে ২০১৫ সালের ২৭ জানুয়ারি ট্রাকচালক আব্দুর রহমান ও বকুল দেবনাথ, ২০১৫ সালের ১৩ জানুয়ারি আড়াই বছরের শিশু সাফির, জেসমিন আক্তার, ওই বছর ১৫ জানুয়ারি স্কুল ছাত্র রাজন আলী, বাসচালকের সহকারী তোফাজ্জল, ট্রাকচালকের সহকারী সোহাগ বিশ্বাস রয়েছেন।ওইসব হত্যাকাণ্ডের দায়ভার অবরোধ ও হরতাল ডাকা ২০ দলীয় জোটের প্রধান খালেদা জিয়া এবং অপর তিন আসামির ওপর বর্তায় বলে অভিযোগে বলা হয়। অন্যদিকে অনির্দিষ্টকালের অবরোধ ও হরতাল ডেকে মানুষ হত্যা রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণার সামিল হিসেবে রাষ্ট্রদ্রোহিতার অপরাধের মধ্যে পড়ে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!