‘সিরিয়ায় সম্ভাব্য হামলার খরচ আরবদের থেকে নেবেন ট্রাম্প’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : রাসায়নিক বোমা ফেলার অভিযোগ তুলে সিরিয়ার সরকার ও সামরিক বাহিনীর ওপর হামলা করার যে হুমকি ‍যুক্তরাষ্ট্র দিয়েছে, সেই হামলার খরচের পুরোটাই আরবদের কাছ থেকে যুক্তরাষ্ট্র আদায় করবে বলে মন্তব্য করেছেন লেবানন সংসদের স্পিকার নাবি বেরি। এছাড়া সম্ভাব্য আগ্রাসনের পরিণতি ভয়াবহ হবে বলেও জানান তিনি।

বুধবার সংসদ সদস্যের সঙ্গে বৈঠকের সময় তিনি এ কথা বলেন।

সম্প্রতি সিরিয়ার দুমায় রাসায়নিক বোমা ফেলার অভিযোগ তুলে দেশটির বৈধ সরকার ও সামরিক বাহিনীর ওপর হামলার হুমকি দিয়েছে ‍যুক্তরাষ্ট্র। তবে সিরিয়ার সরকার রাসায়নিক হামলার অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে।

এর প্রতিক্রিয়াই রাশিয়াও বলেছে, সিরিয়াকে লক্ষ্য করে যেসব ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়া হবে সেগুলোকে ধ্বংস করা হবে। উৎক্ষেপণস্থলেও আঘাত হানা হবে।

যুক্তরাষ্ট্র সিরিয়ায় ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালাবে বলে ঘোষণা করার পর বিভিন্ন দেশ ও সংগঠন প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করছে।

যুক্তরাষ্ট্রের হামলার হুমকির ব্যাপারে লেবানন সংসদের স্পিকার নাবি বেরি বলেন, সিরিয়ায় হামলা হলে মধ্যপ্রাচ্য পুরোপুরি অস্থিতিশীল হয়ে পড়বে এবং নতুন করে ব্যাপক মাত্রায় রক্তপাত ও ধ্বংসযজ্ঞ হবে।

এদিকে ফিলিস্তিনের পপুলার ফ্রন্ট ফর দ্য লিবারেশন অব প্যালেস্টাইন ঘোষণা করেছে, সাম্রাজ্যবাদী দেশগুলোর পরিকল্পনা বাস্তবায়নে কয়েকটি আরব দেশ সহযোগিতা করছে। ওইসব দেশের এমন পদক্ষেপের তীব্র নিন্দা জানিয়ে সংগঠনটি এ ধরনের তৎপরতা বন্ধ হওয়া উচিত বল জানিয়েছে।

সূত্র: পার্স টুডে

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!