সকালের নাস্তায় পাউরুটি খেলে শরীরের যেসব ক্ষতি হয়

কুমিল্লাবিডি ডেস্ক: রুটি বানানো বেশ কষ্টকর, একথা সবাই মানেন। তবুও স্বাস্থ্য সচেতনরা সংরক্ষণ করে হলেও সকালের নাস্তায় প্রতিদিন রুটি খেয়ে থাকেন।
আর অন্যরা আলেসেমির কারণে পাউরুটি মুখে পুরেই নাস্তা শেষ করেন। তবে জানেন কি? পাউরুটির কারণে আপনার শরীরে নানা ধরনের সমস্যা দেখা দিতে পারে। জেনে নিন এতে করে যেসব সমস্যা হয়ে থাকে-
প্রতিদিন নাস্তায় পাউরুটি খেলে অলস হয়ে যেতে পারেন।
পাউরুটি প্রতিদিন খেলে ওজন দ্রুত বাড়বে।
হজমে গণ্ডগোল হবে, পেট ফোলা ও বদহজমও হতে পারে।
ক্লান্তিবোধ বাড়বে।
রক্তে চিনির পরিমাণ বেড়ে যাওয়ায় ডায়াবেটিস হতে পারে।
এই ছোট্ট অভ্যাসের কারণে হৃদরোগের ঝুঁকিও বেড়ে যায়।
এজন্য প্রতিদিন পাউরুটি না খেয়ে আটার রুটি খাওয়ার চেষ্টা করুন। রুটি আপনার ওজন হ্রাস করার পাশাপাশি কর্মশক্তি বৃদ্ধি করবে। তবে রুটি বানানো বেশ কষ্টের আর বেশি করে বানিয়ে ফ্রিজে রাখলে পরদিনই রুটি শক্ত হয়েও যেতে পারে। তাহলে উপায়? জেনে নিন ফ্রিজে রেখেও কীভাবে পুরো সপ্তাহ খেতে পারেন নরম তুলতুলে-গরম রুটি:
আটা মেখে নেয়ার সময় হালকা তেল দিয়ে মাখুন। এতে আটা নরম হবে এবং সংরক্ষণে সুবিধা হবে। রুটি বানিয়ে হালকা করে সেঁকে নিন। টেবিলে বড় করে পত্রিকা বিছিয়ে সেঁকে নেয়া রুটিগুলো বিছিয়ে শুকিয়ে নিন।
এবার জিপলক ব্যাগ বা এয়ার টাইট বক্সে ভরে ফ্রিজে রেখে দিন। খাওয়ার আগে বের করে সেঁকে নিন। ছুটির দিনে সময় করে বেশি করে রুটি বানিয়ে রাখুন। এভাবে ফ্রিজে রাখা রুটি সাত দিনের বেশি রাখবেন না। আগেরগুলো খেয়ে আবার নতুন করে বানিয়ে রাখুন।