শিশুর গলায় জ্যান্ত কৈ মাছ

জ্যান্ত একটি কৈ মাছ আট মাসের এক শিশুর শ্বাসনালীতে আটকে যায়। তড়িঘড়ি করে শিশুটিকে নিয়ে যাওয়া হয় পশ্চিমবঙ্গের মালদহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে।

কালিয়াচকের সুলতানগঞ্জের বাসিন্দা রহিম শেখের স্ত্রী আমিনা বিবি জানেন জ্যান্ত কই মাছ কত মারাত্মক। আক্ষেপ করছিলেন, কেন ভুল করে বাচ্চাদের সামনে রেখেছিলেন মাছগুলো।

বুধবার বিকালে মাছ আনেন রহিম। আমিনা যেখানে সেগুলো রেখেছিলেন, তার কাছেই খেলছিল তার চার বছরের রাহুল আর আট মাসের হামিদ। রাহুল খেলতে খেলতে ভাইয়ের মুখে জ্যান্ত কই ঢুকিয়ে দেয়। সঙ্গে সঙ্গে হামিদকে গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। রাতেই মালদহ মেডিকেলে। হামিদকে দেখার পরে ইএনটি বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক পি কে মণ্ডলের নেতৃত্বে চার জনের দল করে ফেলা হয়। মাত্র দশ মিনিটে ল্যারিঙ্গোস্কোপি করে শিশুর শ্বাসনালীতে আটকে থাকা কই বের করে ফেলেন তারা। কৈ মাছটাও তখনও বেঁচে ছিল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!