1. redsunbangladesh@yahoo.com : admin : Tofauil mahmaud
  2. mdbahar2348@gmail.com : Bahar Bhuiyan : Bahar Bhuiyan
  3. sharifnews24@gmail.com : sharif ahmed : sharif ahmed
শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:১২ অপরাহ্ন

শিশুকে পাঁচ কারণে ঘরের কাজে উৎসাহ দেয়া জরুরি

রিপোর্টারের নাম :
  • প্রকাশিত : রবিবার, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ১৬০ বার পড়া হয়েছে

লাইফস্টাইল ডেস্ক:ঘরে থাকা শিশুদের দিয়ে কাজ করানোর ব্যাপারে অনেকেই দ্বিমত প্রকাশ করেন। বিষয়টি বিতর্কিত হলেও শিশুদের ঘরের ছোট খাটো কাজে অভ্যস্ত করা জরুরি। যদিও অনেক বাবা-মা অনুভব করেন যে, শিশুদের শৈশব উপভোগ করা উচিত। অন্যদিকে কেউ কেউ মনে করেন, শৃঙ্খলা এবং দায়িত্ববোধ শেখার এটিই সঠিক বয়স।
বিশেষজ্ঞদের মতে, ঘরের কাজে শিশুদের সম্পৃক্ত করা আসলে একটি ভালো ধারণা। তাকে আপনার ঘরের কাজে সাহায্য করতে বলে আপনি ভুল করছেন তা কিন্তু নয়। অবশ্যই আপনি তাদের কঠিন কাজগুলো করাবেন না, তবে গাছে পানি দেয়া বা কাপড় ভাঁজ করার মতো ছোট ছোট কাজ করতে দেয়া মোটেও খারাপ কিছু নয়। এর অনেক দীর্ঘ এবং স্বল্প-মেয়াদী সুবিধা রয়েছে। এটি শিশুকে রুটিন মেনে চলতে, আত্মবিশ্বাস তৈরি করতে এবং পরিবারের সঙ্গে সম্পৃক্ত থাকতে সাহায্য করে।
তবে অবশ্যই বাবা-মার মনে রাখা জরুরি যে তারা শিশু। সুতরাং তারা কাজগুলো স্বাভাবিকভাবেই নিখুঁত হবে না। এর অর্থ এই নয় যে তাদের কাজ দেয়া বন্ধ করে দেবেন। বরং চেষ্টাটির প্রশংসা করুন এবং তাদের আরো ভালো করতে উৎসাহিত করুন। চলুন এবার জেনে নেয়া যাক কেন শিশুকে ঘরের কাজে উৎসাহ দেয়া জরুরি?
দায়বদ্ধতার ধারণা দেয়
শিশুকে দায়বদ্ধতা শেখাতে চাইলে তাদের ঘরের কাজকর্মে জড়িত করুন। কারণ শিশুকে বাড়ির কাজকর্মে জড়িত করা এবং ছোট ছোট কাজ করতে দেয়া তাদেরকে দায়বদ্ধ করে তোলে। এটি একটি গুরুত্বপূর্ণ জীবন দক্ষতা, যা তাদের বড় হওয়ার পরেও তাদের সহায়তা করবে। বিছানা গোছানো বা পানির বোতলে পানি ভরার মতো ছোট ছোট কাজ তারা সহজেই করতে পারে। এগুলো তাদের দায়িত্ব পালন সম্পর্কে সচেতন করে তোলে।
পরিকল্পনার সক্ষমতা বিকাশে সহায়তা করে
জীবনের যেকোনো পর্যায়েই পরিকল্পনা করা গুরুত্বপূর্ণ। এক্ষেত্রে যদি আপনার শিশু জীবনের শুরুতেই এই প্রাথমিক দক্ষতাটি শিখে নিতে পারে তবে আরো ভালো। যখন আমরা বড় হয়ে মাল্টিটাস্ক করতে পারি, সেখানে সঠিকভাবে পরিকল্পনা করা খুব গুরুত্বপূর্ণ। গৃহস্থালী কাজে অংশ নেয়া এই অভ্যাসটি বিকাশে সহায়তা করে এবং তাদের মস্তিষ্ককে কিছুটা শক্ত সময় দেয়। যা এই পেশীগুলো নমনীয় করার একটি দুর্দান্ত উপায়।
তাদের সহানুভূতিশীল হতে শেখায়
শিশুকে সহানুভূতি শেখানোর জন্য অন্যকে সহায়তা করা একটি দুর্দান্ত উপায়। আপনার শিশুকে পরিবারের অন্য সদস্যদের সহায়তা করতে শেখান। যখন তারা কাজটি সম্পূর্ণ করে, তাদের কাজের প্রশংসা করুন। এমনভাবে কথা বলুন যেন তারা একটি দুর্দান্ত কাজ করেছে! এটি তাদের অন্যান্য কাজের প্রতি আগ্রহী হতে উৎসাহিত করবে এবং সহানুভূতির গুরুত্ব বুঝতে পারবে।
তাদের অর্জনের অনুভূতি তৈরি করে
কাজের শেষে প্রশংসা মিললে শিশুর ভেতরে অর্জনের অনুভূতি তৈরি হবে। প্রতিবার যখন আপনি তাদের ঘরের কোনো কাজ করতে দেবেন, তারা আরো ভালো করার চেষ্টা করবে। কারণ তারা জানে যে তারা যদি ভালো কাজ করে তবে তাদের প্রশংসা করা হবে।
তাদের স্বাবলম্বী হতে সহায়তা করে
এতে কোনো সন্দেহ নেই যে শিশুরা তাদের মা-বাবার উপর নির্ভর করে। তবে তাদের ছোট ছোট দায়িত্ব দেয়া হলে তা তাদের স্বাবলম্বী করে তুলবে। তাদের বড় হওয়ায় ক্ষেত্রে এই জীবন দক্ষতা ভীষণ দরকারি। কারো উপর নির্ভর করার চেয়ে তারা নিজের কাজ নিজে করার বিষয়ে আস্থাশীল হবে।
সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

—-সম্পাদক মন্ডলীর

সম্পাদকও প্রকাশক: তোফায়েল মাহমুদ ভূঁইয়া (বাহার)
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদক: হাজী মোঃ সাইফুল ইসলাম
সহ-সম্পাদক: কামরুল হাসান রোকন
বার্তা সম্পাদক: শরীফ আহমেদ মজুমদার
নির্বাহী সম্পাদক: মোসা:আমেনা বেগম

উপদেষ্টা মন্ডলীর

প্রধান উপদেষ্টা : ডা: জাহাঙ্গীর হোসেন ভূঁইয়া
উপদেষ্টা : জাকির হোসেন মজুমদার,
উপদেষ্টা : এ এস এম আনার উল্লাহ বাবলু ,
উপদেষ্টা : শাকিল মোল্লা,
উপদেষ্টা : অবসরপ্রাপ্ত জামিল আর্মি,

© All rights reserved © 2019 LatestNews
প্রযুক্তি সহায়তায় মাল্টিকেয়ার
error: Content is protected !!