1. redsunbangladesh@yahoo.com : admin : Tofauil mahmaud
  2. mdbahar2348@gmail.com : Bahar Bhuiyan : Bahar Bhuiyan
  3. mdmizanm944@gmail.com : Mizan Hawlader : Mizan Hawlader
মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ১০:২৫ অপরাহ্ন

রিটের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল নেই কেন: মওদুদ

রিপোর্টারের নাম :
  • প্রকাশিত : শনিবার, ২০ জানুয়ারি, ২০১৮
  • ২ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঢাকা উত্তর সিটিতে মেয়র পদে নির্বাচন স্থগিতের আদেশের বিরুদ্ধে নির্বাচন কমিশন বা সরকার কেন আপিল করেনি তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন বিএনপি নেতা মওদুদ আহমদ। তার দাবি, এতেই প্রমাণ হয় ভোট স্থগিতে সরকারের হাত রয়েছে।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবের অডিটরিয়ামে জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি-জাগপার ছাত্র সংগঠন জাগপা ছাত্রলীগের ৭০ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর সম্মেলনে মওদুদ এসব কথা বলেন।

মওদুদ বলেন, ‘সরকার নির্বাচন চাইলে রাষ্ট্রপক্ষ এখনও আপিল করতে পারে।’

‘তাহলে আপনারা যান না কেন? আগামী নির্বাচনে কী হতে যাচ্ছে- এটা এখন দেশের মানুষ নিশ্চয়ই বুঝতে পারছে।’

ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির কোষাধ্যক্ষ এবং ভাটারা থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান এবং বাড্ডা থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলমের এর রিট আবেদনে গত ১৭ জানুয়ারি ভোট তিন মাসের জন্য স্থগিতের আদেশ দিয়েছে। রিটকারী দুই নেতা যথাক্রমে ভাটারা এবং বেরাইদ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান। তাদের নির্বাচনী এলাকা গত বছর ঢাকা সিটি করপোরেশনের অন্তর্ভুক্ত হয়েছে।

হাইকোর্টের আদেশের পর বিএনপর পক্ষ থেকে এর পেছনে সরকারের হাত রয়েছে বলে দাবি করা হয়। এমনকি রিটকারী একজন নিজ দলের নেতা এটা না জেনেই বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন অভিযোগ করে বসেন, ‘সরকার নিজেদের লোক দিয়ে রিট করিয়ে নির্বাচন স্থগিত করিয়েছে।’

তবে রিটকারীদের একজন বিএনপির নেতা বলে প্রমাণ হওয়ার পর বিএনপি নেতারা নির্বাচন কমিশনকে আক্রমণ করছেন। তাদের দাবি, এখানে আইনি জটিলতা রেখেই তফসিল ঘোষণা করা হয়েছে।

আবার রিটকারী বিএনপি নেতার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে কেন্দ্রীয় নেতাদেরকে নিয়ে বৈঠক করার কথাও জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

মির্জা ফখরুল যখন এই বক্তব্য রাখছিলেন, তার কিছুক্ষণ পর অন্য একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছিলেন মওদুদ। তিনি ভোট স্থগিতে সরকার ও নির্বাচন কমিশনের ‘যোগসাজস’কেই দায়ী করেন।

মওদুদ বলেন, ‘রিট করে নির্বাচন স্থগিত করা হলো, কিন্তু আপিল করা হলো না। এতে বোঝা যায় নির্বাচন স্থগিতে সরকার ও নির্বাচন কমিশন একমত। তারা একই যাত্রার যাত্রী।’

‘রিটের শুনানি পরদিন পর্যন্ত মুলতবি করা হয়েছিল। ওইদিন অ্যাটর্নি জেনারেলকে শুনানি করতে আদালত নির্দেশ দিয়েছিল। অনেক মামলাতেই অ্যাটর্নি জেনারেল শুনানি করতে যান, অথচ তিনি ডিএনসিসির রিটর শুনানিতে গেলেন না। এ থেকেই বোঝা যায় সরকার পরোক্ষভাবে এই নির্বাচন স্থগিত করেছে।’

‘বাংলাদেশের মানুষ বোকা না। তারা সব বোঝে’-এমন মন্তব্য করে বিএনপি নেতা দাবি করেন, ‘ডিএনসিসির নির্বাচন নিয়ে তিনটি জরিপ হয়েছিল। তাতে দেখা গেছে বিএনপি বিপুল ভোটের ব্যবধানে জয়লাভ করবে। এ কারণে হেরে যাবে বুঝতে পেরে নির্বাচন স্থগিত করেছে আওয়ামী লীগ।’

সরকারের কারণে এখন দেশে ‘বন্দী’ অবস্থায় থাকলেও এই বাঁধ একদিন ভাঙবে বলেও মন্তব্য করেন মওমুদ। বলেন, ‘জনগণের জোয়ার আসলে তাদের সব কলাকৌশল ভেস্তে যাবে।’

জাগপা ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুল আলমের সভাপতিত্বে সম্মেলনের উদ্বোধন করেন জাগপা সভাপতি রেহানা প্রধান। জাগপা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল ইসলাম রুবেলের সঞ্চালনায় দলটির সাবেক ও বর্তমান নেতাকর্মীরা বক্তব্য রাখেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ পড়ুন

—-সম্পাদক মন্ডলীর

সম্পাদকও প্রকাশক: তোফায়েল মাহমুদ ভূঁইয়া (বাহার
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদক: হাজী মোঃ সাইফুল ইসলাম
সহ-সম্পাদক: কামরুল হাসান রোকন
বার্তা সম্পাদক: শরীফ আহমেদ মজুমদার
নির্বাহী সম্পাদক: মোসা:আমেনা বেগম

উপদেষ্টা মন্ডলীর

সভাপতি মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন মজুমদার,
প্রধান উপদেষ্টা সাজ্জাদুল কবীর,
উপদেষ্টা জাকির হোসেন মজুমদার,
উপদেষ্টা এ এস এম আনার উল্লাহ বাবলু ,
উপদেষ্টা শাকিল মোল্লা,
উপদেষ্টা এম মিজানুর রহমান

Copyright © 2020 www.comillabd.com কুমিল্লাবিডি ডট কম. All rights reserved.
প্রযুক্তি সহায়তায় মাল্টিকেয়ার
error: Content is protected !!