বয়স ধরে রাখার উপায়!

লাইফস্টাইল ডেস্ক : আপনাকে কি প্রকৃত বয়সের তুলনায় বেশি বুড়ো দেখায়? আয়নায় যদি নিজেকে দেখে চিনতে কষ্ট হয়, তাহলে প্রতিদিনের রুটিনটা এখনই মূল্যায়ন করা উচিত। আপনি কী খান, কীভাবে ঘুমান, সেসব বিষয়ও আপনাকে নতুন করে ভেবে দেখতে হবে। এগুলো সঠিকভাবে না হলে আপনার কাঙ্ক্ষিত আয়ুও কিন্তু কমে যেতে পারে! বিশেষজ্ঞরা গবেষণায় জেনেছেন, প্রতিদিন যে অভ্যাসগুলো আপনাকে আরো বেশি বয়স্ক করে তুলবে চলুন সেগুলো জেন নেই।

অনেকের ধারণা প্রতিদিন নানা ধরনের কাজ করা ভালো। আসলে ব্যাপারটা উল্টো। প্রতিদিন যদি কাজের চাপ লেগেই থাকে, তাহলে তা মানসিক ও শরীরিক চাপ তৈরি করে। আর তা আপনার চেহারা ও শরীরের স্বাভাবিক সৌন্দর্য নষ্ট করে বয়স বাড়িয়ে দেয়। কয়েক ধরণের গবেষণায় দেখা গেছে ক্রনিক স্ট্রেস শরীরের কোষগুলো নষ্ট করে দেয়। তাই ডাক্তাররা বলছেন, প্রতিদিন একটি কাজের উপরই বেশি জোর দেয়া উচিত। সেটি ভালোভাবে শেষ হলে পরের কাজ শুরু করুন।

মিষ্টি বা মিষ্টান্ন যদি সব সময় খাওয়ার অভ্যাস থাকে তাহলে ওজন যেমন বাড়তে পারে, তেমনি চেহারায় বয়সের ছাপ পড়তে পারে। চিনি আপনার দেহে গ্লাইকেশন প্রক্রিয়ায় বাধা দিয়ে দেহ ও চেহারার উজ্জ্বলতা নষ্ট করে দিতে পারে। এতে করে মুখে বয়সের ছাপ, চোখের নিচে কালো দাগ এসব দেখা দেয়। তাই তারুণ্য ধরে রাখতে চাইলে মিষ্টি, চিনি জাতীয় খাবার বর্জন করুন।

প্রতি রাতেই কি আপনি ৫ ঘণ্টার কম ঘুমাচ্ছেন? এতে চোখের নিচে যেমন কালো ছাপ পড়বে, তেমনি আপনার আয়ুও কমে যাবে। তাই ডাক্তাররা রাতে অন্তত ৭ ঘণ্টা ঘুমের পরামর্শ দেন। ব্রিটিশ জার্নাল অফ স্পোর্টস মেডিসিন পরিচালিত ২৫ ও তার চেয়ে বেশি বয়সী ১১ হাজার অস্ট্রেলিয়ান যুবকের উপর এক গবেষণায় দেখা গেছে, যারা প্রতিদিন ১ ঘণ্টা টিভি দেখেছে, তাদের আয়ু ২২ মিনিট করে কমেছে। আমরা যারা দিনে গড়ে ৬ ঘণ্টা টিভি দেখি, তাদের আয়ু কমে যাচ্ছে ৫ বছর। মূলত এক জায়গায় কয়েক ঘণ্টা বসে থাকার ফলে শরীরে চিনির পরিমাণ বেড়ে গিয়ে নানা রোগ দেখা দেয়। তাই টিভি দেখা বা অফিসে কাজ করার সময় এক জায়গায় দীর্ঘক্ষণ বসে না থেকে প্রতি ৩০ মিনিট পর একটু হাঁটার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।

যারা দিনের বেশির ভাগ কর্মহীন সময় কাটান, তারা কিডনি, কার্ডিওভাস্কুলার রোগ, ক্যানসার, ওজন বাড়াসহ নানা রোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকিতে থাকেন। তাই, প্রতিদিন ব্যায়াম করা জরুরি। গবেষণায় দেখা গেছে সপ্তাহে যারা ১৫০ মিনিট বা তার চেয়ে বেশি সময় ব্যায়াম করেন, তাদের আয়ু ১০-১৩ বছর বেড়ে যায়।

গবেষকরা বলছেন, প্রতিদিন একটা ভালো মানের আই ক্রিম ব্যবহার করা জরুরি। নইলে চোখের নিচে বলিরেখা দেখা দিয়ে বয়স বেশি দেখাবে। সম্ভব হলে সানস্ক্রিন ব্যবহার করা উচিত সব সময়। আপনি নারী হলে প্রতিদিন যদি কড়া মেকআপ নিয়ে বাইরে বের হন, তাহলে এক সময় আপনার বয়স বেশি দেখাবে । অতি মাত্রায় স্কিন প্রোডাক্ট ব্যবহার করলে, সেগুলোতে থাকা কেমিক্যাল আপনার চেহারার স্বাভাবিক কোমনীয়তা নষ্ট করে দেবে।

আপনি কি সব সময় উপুড় হয়ে ঘুমান? তাহলে আপনার চেহারায় বয়সের ছাপ দেখা দিতে পারে। কারণ গবেষকরা বলছেন, ওভাবে ঘুমালে চেহারার কোষগুলো দুর্বল হয়ে পড়ে। খাবারের তালিকা থেকে সব ধরণের চর্বি বাদ দেয়া ঠিক না। বিশেষ করে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি এসিড সমৃদ্ধ মাছের চর্বি ত্বকের জন্য খুব উপকারী। এটি ত্বক ও চেহারায় উজ্জ্বলতা এনে দেয়। তাই বয়স্ক হওয়ার আগেই বুড়ো হতে না চাইলে আপনাকে প্রতিদিনের এসব অভ্যাস সম্পর্কে এখনই সতর্ক হতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!