চুয়াডাঙ্গায় ৭টি স্বর্ণের বারসহ এক চোরাকারবারীকে আটক করেছে : বিজিবি

চুয়াডাঙ্গা সংবাদদাতা : চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার জয়রামপুর কাঁঠালতলা এলাকায় অভিযান চালিয়ে ৭টি স্বর্ণের বারসহ শাহীন হোসেন (৩২) নামে এক চোরাকারবারীকে আটক করেছে বিজিবি। শুক্রবার ভোর সাড়ে ৬টার দিকে তাকে আটক করা হয়। আটকৃত শাহীন হোসেন টাঙ্গাইল জেলার মির্জাপুর উপজেলার মরহুম আমির উদ্দীনের ছেলে।
চুয়াডাঙ্গা বিজিবি-৬ ব্যাটালিয়নের পরিচালক ইমাম হাসান জানান, শুক্রবার ভোররাতে চুয়াডাঙ্গা সীমান্ত দিয়ে একটি স্বর্ণের চালান ভারতে পাচার করা হবে, এমন সংবাদের ভিত্তিতে বিজিবির হাবিলদার আবুল বাসারের নেতৃত্বে একটি টহলদল চুয়াডাঙ্গা-দর্শনা সড়কের জয়রামপুর কাঁঠালতলা এলাকায় অবস্থান করছিল। এসময় আলমডাঙ্গা থেকে ছেড়ে আসা খুলনাগামী নিউ মডার্ন নামের একটি বাস গতিরোধ করে বিজিবি সদস্যরা সেখানে তল্লাশি চালিয়ে বাসযাত্রী শাহীনকে আটক করে। পরে তার দেহ তল্লাশী করে ৭টি স্বর্ণের বার জব্দ করা হয়। ৭টি বারের ওজন প্রায় ৭০০ গ্রাম যার আনুমানিক বাজারমূল্য ৩৫ লাখ টাকা। উদ্ধারকৃত স্বর্ণের বার চুয়াডাঙ্গা ট্রেজারী অফিসে জমা ও আটক চোরাকারবারী শাহীনকে দামুড়হুদা মডেল থানায় সোর্পদ করা হয়েছে।
উল্লেখ্য গত ২৫ এপ্রিল দুপুরে চুয়াডাঙ্গা বিজিবি দামুড়হুদা উপজেলা সীমান্তবর্তী নাস্তিপুর গ্রামের মাথাভাঙ্গা নদী থেকে ৩৭ কেজি ওজনের ৩২০টি স্বর্ণের বার উদ্ধার করে বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের সদস্যরা। যার মূল্য ১৫ কোটি টাকা। তবে ঐ দিন কোন পাচারকারীকে আটক করা যায়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!