কুমিল্লা-১০ (নাঙ্গলকোট-সদর দিক্ষণ) নির্বাচনী আসন পূর্নবহাল, নাঙ্গলকোটে আনন্দ মিছিল: মিষ্টি বিতরণ!

বারী উদ্দিন আহমেদ বাবরঃ
কুমিল্লার পৃথক দুটি নির্বাচনী আসন কুমিল্লা-৯ ও কুমিল্লা-১১ আসনকে (নাঙ্গলকোট ও সদর দিক্ষণ) উপজেলাকে নিয়ে একটি আসন গঠন করেন নির্বাচন কমিশন। ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে এই দুটি আসন পুনর্বিন্যাস করে বিগত ইসি। এতে নাঙ্গলকোট উপজেলার সঙ্গে সীমানা বাড়িয়ে সদর দক্ষিণ উপজেলার আটটি ইউনিয়নকে যুক্ত করে কুমিল্লা-১০ আসন করা হয়েছিল। এভাবে আসন পুনর্বিন্যাস করার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট আবেদন করেন নাঙ্গলকোটের সাবেক সাংসদ আবদুল গফুর ভূঁঁইয়া। আবেদনে শুধু নাঙ্গলকোট উপজেলা নিয়ে এ আসন করার দাবি করা হয়। এ রুলের ওপর শুনানি শেষে গত বছরের ২০ মার্চ হাইকোর্ট এক রায়ে ওই আসন এলাকা পুনর্নির্ধারণের বিষয়ে আইনানুযায়ী পদক্ষেপ নিতে ইসিকে নির্দেশ দেন। আদালতের আদেশ অনুসারে জাতীয় সংসদের কুমিল্লা-১০ আসনের সীমানা পুনর্নির্ধারণ না করায় গত ১০ ডিসেম্বর রবিবার বিচারপতি মো. আশফাকুল ইসলাম ও বিচারপতি কে এম কামরুল কাদেরের হাইকোর্ট বেঞ্চ নির্বাচন কমিশনের সচিবের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল জারি করেন। নির্বাচন কমিশন ওই আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করেন। নির্বাচন কমিশনের আপিল আবেদন আমলে নিয়ে আপিল বিভাগ বৃহস্পতিবার হাইকোর্টের দেয়া কুমিল্লা-১১ তথা নাঙ্গলকোট স্বতন্ত্র নির্বাচনী আসন পূর্ণবহালের রায়টি স্থগিত ঘোষণা করে কুমিল্লা-১০ নির্বাচনী আসনকে পূর্ণবহাল ঘোষণা করেছে। পরবর্তীতে এ মামলার পূর্ণাঙ্গ রায় বৃহস্পতিবার ঘোষণা করেন আপিল বিভাগ। এ রায়ে খুশি হয়ে বৃহস্পতিবার রাতে কুমিল্লা-১০ নির্বাচনী আসন পূর্ণবহাল হওয়ায় নাঙ্গলকোট উপজেলায় আওয়ামীলীগ ও অংগসংগঠনের নেতাকর্মীরা আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরণ করেছেন। ওই মিছিলে অংশ নেন নাঙ্গলকোট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সামছুউদ্দিন কালুসহ স্থানীয় অা.লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ ও অঙ্গসংগঠনেরর নের্তৃবৃন্দ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.