কাতারের উট-ভেড়াও বের করে দিচ্ছে সৌদি

আন্তজার্তিক ডেস্ক : সৌদি আরব তাদের পশু চারণ ভূমি থেকে কাতারের সব উট এবং ভেড়াকে বহিষ্কারের ঘোষণা দিয়েছে। ইতোমধ্যে ১৫ হাজার উট এবং দশ হাজার ভেড়া সৌদি সীমান্ত অতিক্রম করে কাতারে ফিরে এসেছে। মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর সঙ্গে কাতারের তীব্র উত্তেজনার মধ্যে সর্বশেষ পদক্ষেপ এটি।
এদিকে ফিরে আসা উট এবং ভেড়ার পালের জন্য কাতার একটি জরুরী আশ্রয় কেন্দ্র খুলেছে। সেখানে পানি এবং পশু খাদ্যের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। কাতার যেহেতু একেবারে ছোট একটি দেশ, তাই অনেক কাতারি তাদের উট এবং ভেড়া সৌদি আরবের বিভিন্ন চারণভূমিতে নিয়ে রাখে।
কাতার ইসলামি জঙ্গীবাদকে মদত দিচ্ছে এই অভিযোগে এ মাসের শুরুতে সৌদি আরব সহ কয়েকটি উপসাগরীয় দেশ কাতারের সঙ্গে সম্পর্ক ছেদ করে। কাতার অবশ্য এই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে।
কাতারের পৌর এবং পরিবেশ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ফিরে আসা উট এবং ভেড়ার পালের জন্য নতুন জায়গা খুঁজে না পাওয়া পর্যন্ত তাদের অস্থায়ী আশ্রয় শিবিরেই রাখা হবে। কাতারের এক কর্মকর্তা জানান, এ পর্যন্ত প্রায় ২৫ হাজার উট এবং ভেড়া সৌদি আরব থেকে ফেরত পাঠানো হয়েছে।
সোশ্যাল মিডিয়াতে সাম্প্রতিক সময়ে পোস্ট করা ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, ভেড়া এবং উটের পাল সীমান্ত অতিক্রম করে কাতারে ঢুকছে। কাতারি পশু পালকরা সৌদি আরবের এই পদক্ষেপে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। আলী মাগারেহ নামে এক ব্যক্তি বলেন, “আমরা এসব রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত হতে চাই না। আমরা মোটেই খুশি নই।”

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!