ঈদের পর প্রতিভার খোঁজে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স

শরীফ আহমেদ মজুমদার,কুমিল্লা প্রতিনিধি: ক্রিকেট প্রতিভার খোঁজে পবিত্র ঈদুল ফিতরের পর মাঠে নামছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। কুমিল্লা স্টেডিয়াম, লালমাই মিনি স্টেডিয়াম, লাকসাম স্টেডিয়াম, বরুড়া, দেবিদ্ধার ও চৌদ্দগ্রাম কলেজ মাঠে ৩টি বিভাগে (ব্যাটসম্যান, বোলার ও উইকেটকিপার) এ হান্টিং কার্যক্রম চলবে।
ম্যানস ওয়ার্ল্ডের সহায়তায় লালমাই টেলেন্ট হান্ট ক্রিকেট একাডেমীর পরিচালনায় হান্টিং প্রোগ্রামের প্রথম ধাপে মোট ৪শ’ ক্রিকেটারকে বাছাই করা হবে। পরে এদের মধ্যে থেকে সেরা ৫০/৬০জনকে লালমাই টেলেন্ট হান্ট ক্রিকেট একাডেমীতে ৩ মাসের আবাসিক প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।
প্রশিক্ষণে লালমাই টেলেন্ট হান্ট ক্রিকেট একাডেমীর প্রধান কোচ আতিকুর রহমান ছাড়াও ঢাকা ও কুমিল্লার সিনিয়র কোচরা থাকবেন। প্রশিক্ষিতরা পরবর্তীতে লালমাই একাডেমীতে নিয়মিত প্রেকটিস করার সুযোগ পাবেন।
ঈদের পর হান্টিং কার্যক্রম উদ্বোধন করবেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স’র চেয়ারম্যান নাফিসা কামাল।
হান্টিং প্রোগ্রামের প্রধান ও কুমিল্লা সদর দক্ষিণ উপজেলা চেয়ারম্যান গোলাম সারওয়ার বলেন, কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ক্রিকেটার হান্টিং প্রোগ্রামের মধ্য দিয়ে কুমিল্লার উদীয়মান ক্রিকেটাররা প্রশিক্ষিত হয়ে যোগ্য ও দক্ষ ক্রিকেটারে রুপান্তর হবে। এদের মধ্য থেকেই প্রতিভাবানরা একদিন বিপিএল ও জাতীয় দলে খেলতে পারবে, ইনশাল্লাহ।
উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ১লা সেপ্টেম্বর লালমাই স্টেডিয়ামে লালমাই টেলেন্ট হান্ট ক্রিকেট একাডেমীর উদ্বোধন করেন মাননীয় পরিকল্পনামন্ত্রী আ.হ.ম মুস্তফা কামাল এমপি। তখন থেকেই একাডেমীটি কুমিল্লার ক্রিকেটকে এগিয়ে নিতে স্কুল পর্যায়ে ক্রিকেট টুর্নামেন্টসহ বিভিন্ন স্কিল ক্যাম্প করে যাচ্ছে। স্থানীয়ভাবে একাডেমীটি কুমিল্লা ভিক্টোরিান্সের প্রতিনিধিত্ব করে আসছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!